বুধবার, ২৬ জুন, ২০১৯

চলেই গেলেন জয়ললিতা

SONALISOMOY.COM
ডিসেম্বর ৮, ২০১৬
news-image

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
ভারতের তামিলনাড়ু রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী জয়রাম জয়ললিতা (৬৮) মারা গেছেন।

জয়ললিতাকে হারিয়ে তামিলনাড়ুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তুমুল জনপ্রিয় এই নেতার জন্য মাতম করছে রাজ্যের মানুষ।

স্থানীয় সময় সোমবার দিবাগত রাত ১১টা ৩০ মিনিটে তাকে মৃত ঘোষণা করা হয়। ২২ সেপ্টেম্বর থেকে একটানা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি।

চেন্নাইয়ের অ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার সন্ধ্যায় হার্ট অ্যাটাকে আক্রান্ত হন তামিলদের ‘আম্মা’ জয়ললিতা। তার শারীরিক অবস্থা ছিল সংকটাপন্ন। চিকিৎসকদের নিবিড় পর্যবেক্ষণে ছিলেন তিনি। সোমবার সকাল থেকে তার অবস্থার অবনতি হয়।

জয়ললিতার আরোগ্য কামনা করে ভারতজুড়ে প্রার্থনা হয়। রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিসহ দেশের সর্বস্তরের নেতারা তার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।

জ্বর ও পানিশূন্যতা নিয়ে ২২ সেপ্টেম্বর হাসপাতালে ভর্তি হন জয়ললিতা। এরপর জীবাণুর সংক্রমণ হতে থাকে তার শরীরে এবং শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা দেখা দেয়।

ভারতের অন্যতম জনপ্রিয় নেতা জয়ললিতা তামিলনাড়ুর মানুষের কাছে খুবই জনপ্রিয়। একসময় অভিনয় দিয়েও মানুষের মন জয় করেছেন তিনি। এ রাজ্যের ‘আম্মা’ বলা হয় তাকে। আম্মার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে রাস্তায় মানুষের ঢল নামে। চেন্নাইয়ে অ্যাপোলো হাসপাতালের সামনে জড়ো হন হাজার হাজার মানুষ।

সোমবার দিবাগত রাতে জয়ললিতার মৃত্যু নিয়ে হাসপাতাল ও তার দল এআইএডিএমকের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি হয়। দলের নেতা-কর্মীরা তার মৃত্যু মেনে নিতে পারছিলেন না। অবশেষে দলটি তাদের টুইটার পেজে মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করে লেখে, ‘আমাদের প্রিয় নেত্রী, ভারতের লৌহমানবী জয়ললিতা আর নেই।’

জয়ললিতা সিনেমা জগতে জয়া নামেই পরিচিত ছিলেন। ১৯৮০-এর দশকে রাজনীতিতে আসার আগে শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেন তিনি। নাটকীয়তায় ভরা তার জীবন। মুখ্যমন্ত্রী থাকা অবস্থায় দুবার কারাবন্দি হন তিনি। সবশেষ ২০১৪ সালে অর্থ আত্মসাতের মামলায় তিনি গ্রেপ্তার হন। তবে শেষ পর্যন্ত মামলা থেকে অব্যাহতি পান তিনি।

ভারতের রাজ্যগুলোর মধ্যে তামিলনাড়ুকে অর্থনৈতিকভাবে এগিয়ে নিয়ে যান জয়া। তার নেতৃত্বে তামিলনাড়ু সব দিক থেকেই এগিয়ে গেছে।

[related_post themes="flat" id="172214"]