শুক্রবার, ৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

নাফ নদী থেকে ছয় বাংলাদেশিকে নিয়ে গেছে বিজিপি

SONALISOMOY.COM
ডিসেম্বর ১৩, ২০১৬
news-image

কক্সবাজার প্রতিনিধি: নাফ নদীতে মাছ শিকার করতে যাওয়া ছয় বাংলাদেশিকে দুটি নৌকাসহ ধরে নিয়ে গেছে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি)। আজ সোমবার ওই ছয়জনের সঙ্গে মাছ ধরতে যাওয়া দুই ব্যক্তি বিজিপির কবল থেকে পালিয়ে এসে এ অভিযোগ তুলেছেন।

বিজিপি যাঁদের ধরে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ উঠেছে, তাঁরা হলেন মোহাম্মদ হোসেন (৩০), মোহাম্মদ ফারুক (৩৭), আবদুর করিম (২৮), সাদেক হোসেন (১৮), আক্তার ফারুক (১৬) ও মোহাম্মদ সাদেক (১৭)। তাঁদের সবার বাড়ি কক্সবাজারের টেকনাফ পৌরসভার চৌধুরীপাড়া এলাকায়।

জেলেদের স্বজনদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সোমবার দুপুরের দিকে দুটি নৌকা নিয়ে আটজন নাফ নদীতে মাছ শিকার করতে যান। বিজিপির কবল থেকে পালিয়ে আসা নুর মোহাম্মদ (২৫) ও আবদুল আমিন (২০) বলেন, মাছ ধরার সময় হঠাৎ করে বিজিপি ধাওয়া করলে তাঁরা দুজন নদীতে ঝাঁপ দেন। তবে দুটি নৌকায় থাকা অন্য ছয়জনকে ধরে ফেলে বিজিপি। অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ওই ছয়জনকে মিয়ানমারের দিকে নিয়ে যাওয়া হয়। আর আবদুল আজিজ নামের এক জেলের নৌকার সহায়তায় তাঁরা দুজন উদ্ধার হন।

টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের উপ-অধিনায়ক মেজর আবু রাসেল ছিদ্দিকী প্রথম আলোকে বলেন, বিষয়টি শুনেছি, ধরে নিয়ে যাওয়ার বিষয়টি খতিয়ে দেখে বিজিপির সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা চলছে। তবে, এখনো অপহৃত জেলে পরিবারের কাছ থেকে লিখিত ও মৌখিকভাবে বিজিবিকে কিছুই জানানো হয়নি। তিনি বলেন, রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে নাফ নদীতে মাছ শিকার সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ করার পরও জেলেরা সেখানে মাছ শিকার করতে যাওয়ায় এ ঘটনা ঘটেছে।