রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯

নোবিপ্রবিতে সংঘর্ষের ঘটনায় ৬ শিক্ষার্থী বহিষ্কৃত

SONALISOMOY.COM
ডিসেম্বর ১৮, ২০১৬
news-image

নোয়াখালী প্রতিনিধি : নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (নোবিপ্রবি) দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনায় ছয় শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের আব্দুস সালাম হলে ভাঙচুরে জড়িত থাকায় তাদের বহিষ্কার করা হয়।

শনিবার দিবাগত রাত ১২টার দিকে নোবিপ্রবি ভিসি ড. এম অহিদুজ্জামান, প্রক্টর মুশফিকুর রহমান, আব্দুস সালাম হলের প্রভোস্ট ড. ইউসুফ মিয়া, সুধারাম থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আনোয়ার হোসেন বৈঠক করেন।

পরে ভিসি অহিদুজ্জামান হলে ভাঙচুরের ঘটনায় জড়িত ছয় শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিষ্কারের ঘোষণা দেন।

বহিষ্কৃতরা হলেন আব্দুল হামিদ বাপ্পি (ফার্মেসি চতুর্থ ব্যাচ), নাসির আহম্মেদ রানা (ইংরেজি, ৮ম ব্যাচ), সাইফুল হক রুপু (খাদ্যপ্রযুক্তি ও পুষ্টিবিজ্ঞান, ৮ম ব্যাচ), সাজ্জাদ শিহাব (ইংরেজি, ৮ম ব্যাচ), জাহিদুর রহমান নাইম (ইনফরমেশন অ্যান্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং, ১০ম ব্যাচ) ও নাসির হোসেন (অর্থনীতি, ১০ম ব্যাচ)।

ভিসি এম অহিদুজ্জামান জানান, ঘটনায় জড়িতদের সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে। যারা বহিরাগতদের নিয়ে এ ভাঙচুর চালিয়েছে, তাদের বিরুদ্ধে প্রশাসনের পক্ষ থেকে মামলা করা হবে।

প্রসঙ্গত, ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগের আবদুল হামিদ রানা ও সাজ্জাদ প্রোমেলের সমর্থকদের মধ্যে বাগবিতণ্ডা হয়। এ ছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের কমিটিকে কেন্দ্র করে ওই দুই পক্ষের মধ্যে বেশ কিছুদিন উত্তেজনা চলছিল। এর জের ধরে শনিবার ছাত্রলীগ নেতা বাপ্পির সমর্থক আবদুল হামিদ রানার নেতৃত্বে ক্যাম্পাসে সাজ্জাদ প্রোমেলের সমর্থকদের ওপর হামলা চালানো হয়। একপর্যায়ে দুই গ্রুপর মধ্যে সংঘর্ষে ২০ জন আহত হন। এ সময় হল ভাঙচুর করা হয়।