সোমবার, ১৭ জুন, ২০১৯

প্রকাশ্যে নৌকায় ভোট দিলেন শামীম ওসমান

SONALISOMOY.COM
ডিসেম্বর ২২, ২০১৬
news-image

নিজস্ব প্রতিবেদক: বেলা আড়াইটায় ভোট দিতে যাবেন-ঢাকাটাইমসকে আগেই জানিয়েছিলেন নারায়ণগঞ্জের আলোচিত আওয়ামী লীগ নেতা এবং সিদ্ধিরগঞ্জ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান। ঘোষণা মতোই এই সময়েই তিনি এলেন কেন্দ্রে। ভোট দিলেন এবং বের হয়ে গেলেন। নারায়ণগঞ্জ বার একাডেমী কেন্দ্রের আট নং বুথে ভোট দেন তিনি।

শামীম ওসমানের ভোট দেয়ার ঘটনাটি এই নির্বাচনের এক আলোচিত ঘটনা। নির্বাচনের দুই প্রধান প্রার্থী সেলিনা হায়াৎ আইভী আর সাখাওয়াত হোসেন খানের মতোই শামীম ওসমানের ভোট দেয়ার ঘটনায় গণমাধ্যমকর্মীদের মধ্যে নজর কাড়ে। কারণ শামীম ওসমানের সঙ্গে আইভীর পুরনো বিরোধ এবং তা মিটে যাওয়ার ঘোষণা দেয়ার পরও ভোটে তার ভূমিকা কী হয়, তা নিয়ে সংশয় ছিল।

সকাল থেকে শামীম ওসমান কোথায়-এমন প্রশ্ন ছিল নির্বাচনী এলাকায়। এমনকি তিনি ভোট দিতে আসবেন না-এমন গুঞ্জনও ছড়ায়। তবে বেলা দুইটা ৩৮ থেকে দুইটা ৪২ মিনিটের মধ্যে বার একাডেমি ভোটকেন্দ্রে নিজের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন শামীম ওসমান। গোপন বুথে না গিয়ে প্রকাশ্যেই নৌকায় ভোট দেন তিনি।

শামীম ভোটকেন্দ্রে ঢোকা থেকে শুরু করে তার ভোট প্রদান আর কেন্দ্র থেকে বের হয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার পুরোটা সময়ই টেলিভিশন চ্যানেল সরাসরি সম্প্রচার করেছে। এ সময় শামীম ওসমানের সমর্থকরা ‘জয় বাংলা’ বলে স্লোগান দেন।

ভোট দেয়া শেষে শামীম ওসমান বলেন, এই নির্বাচনে জয় পরাজয় যাই হোক না কেন, ভোট নিয়ে যেন কেউ কোনো প্রশ্ন তুলতে না পারে সেটা নিশ্চিত করাই ছিল তাদের প্রধান লক্ষ্য। শামীম বলেন, ‘মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভোট নিয়ে কথা উঠেছে। সেখানে পুনঃগণনার দাবি উঠেছে। কিন্তু নারায়ণগঞ্জে যেন এমনটা কিছু না হয় সেটাই ছিল আমাদের উদ্দেশ্য।’

শামীম ওসমান জানান, এই নির্বাচনে আচরণবিধি নিয়ে তিনি অনেক বেশি সতর্ক ছিলেন। বলেন, ‘নির্বাচন বিধির কারণে আমি কোনো সেন্টারে যাইনি। ভোট দিয়ে আমি আবার ফিরে যাবো।’

এই নির্বাচনের কী ফল প্রত্যাশা করছেন-জানতে চাইলে শামীম বলেন, ‘বাংলাদেশে দুটি শক্তি আছে, স্বাধীনতার পক্ষে আর বিপক্ষের শক্তি। আর একটি নিউট্রাল শক্তিও আছে। আমি বিশ্বাস করি, এই শক্তি এখন আমাদের পক্ষে।’ তিনি বলেন, ‘আজকে এমনকি আগামীতেও জনগণ নৌকার পক্ষে রায় দেবে বলে আমি বিশ্বাস করি।’

শামীম ওসমান আবার বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি নির্বাচনের ফল আশানুরুপ হবে। আমরা জয়লাভ করবো।’

শামীমের বক্তব্য শেষ হতে হতে দুইটা ৫০ মিনিট পার হয়ে যায়। এরপর ঘড়ি দেখিয়ে তিনি বলেন, ‘আর এক ঘণ্টা পর আমরা রেজাল্ট পাবো, আপনারা আইসক্রিম খাবেন ইনশাল্লাহ।’

এই নির্বাচনে জয়ী হলে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সেলিনা হায়াৎ আইভীর কাছ থেকে আইসক্রিম খাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন শামীম ওসমান। গত ৯ ডিসেম্বরের সংবাদ সম্মেলনে আইভীর সঙ্গে তার দীর্ঘদিনের বিরোধের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘শাস্তি আমি ওকে অবশ্যই দেবো একটা, শাস্তি আমি ওকে একটা দেবো। সেই শাস্তি হবে ২২ তারিখের পরে। জয়লাভ করার পর নেত্রীর কাছে যাবো, আপনাদেরকেও বাইরে রাখবো, চিন্তা করবেন না। আমি আইসক্রিম খেতে খুব পছন্দ করি। ওকে ফাইন করবো। বলবো, আমাকে  প্রচুর আইসক্রিম খাওয়াও, বিকজ আই লাভ আইসক্রিম।

[related_post themes="flat" id="173509"]