বুধবার, ২১ আগস্ট, ২০১৯

নাসিরনগরে হামলা : অন্যতম হোতা চেয়ারম্যান আঁখি বরখাস্ত

SONALISOMOY.COM
জানুয়ারি ২৩, ২০১৭
news-image

নিজস্ব প্রতিবেদক:
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর উপজেলায় হিন্দু সম্প্রদায়ের মন্দির ও বাড়িঘরে হামলার অন্যতম হোতা হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দেওয়ান আতিকুর রহমান আঁখিকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো. মাহাবুবুর রহমান স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে তাকে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের পদ থেকে বরখাস্তের বিষয়টি জানানো হয়েছে।

আজ সোমবার বিকেলে উপসচিব মো. মাহাবুবুর রহমান বরখাস্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, গত ১৫ জানুয়ারি তার স্বাক্ষরিত এ অফিস আদেশটি ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক এবং নাসিরনগর উপজেলা নিবাহী অফিসারের কাছে পৌঁছে গেছে।

নাসিরনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. লিয়াকত আলী জানান, চিঠিটি আজ সোমবার তাদের হাতে এসেছে। চিঠির প্রেক্ষিতে আজ দুপুরে ওই ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যদের ভোটে ২ নম্বর ওয়াডের সদস্য শেখ দ্বীন ইসলামকে প্যানেল চেয়ারম্যান করা হয়েছে। তিনি ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করবেন। তিনি ছাড়াও  ইউপি সদস্য প্রফুল্লা দাশ এবং শাহানা বেগম প্রতিযোগিতায় অংশ নেন।

মন্ত্রণালয়ের ওই অফিস আদেশে উল্লেখ করা হয়, নাসিরনগরে হিন্দু সম্প্রদায়ের মন্দির ও বাড়িঘরে হামলার ঘটনাটি চাঞ্চল্যকর। ওই ঘটনায় দেওয়ান আতিকুর রহমান আঁখির বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে এবং গ্রেপ্তার হয়ে তিনি অন্তরীণ আছেন। তার এরূপ কাজ ক্ষমতার অপব্যবহার। ফলে তার দ্বারা ক্ষমতা প্রয়োগ জনস্বার্থের পরিপন্থি। ফলে ইউনিয়ন পরিষদ আইন মোতাবেক তাকে সাময়িক বহিষ্কার করা হলো।

গত বছরের ৩০ অক্টোবর ফেসবুকে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে নাসিরনগরে হিন্দু সম্প্রদায়ের মন্দির ও বাড়িঘরে হামলা চালানো হয়। এ ঘটনায় দেশজুড়ে ব্যাপক প্রতিক্রিয়া হয়। ঘটনার অন্যতম হোতা হিসেবে ইউপি চেয়ারম্যান দেওয়ান আতিকুর রহমান আঁখিকে ঢাকা থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।