মঙ্গলবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৭

রিভেঞ্জ পর্ন ঠেকাতে নগ্ন ছবি পাঠাতে হবে ফেসবুকে

SONALISOMOY.COM
নভেম্বর ১০, ২০১৭
news-image

সোনালী সময়  ডেস্ক: নতুন একটি উপায়ে রিভেঞ্জ পর্ন ঠেকাতে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালাচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ জায়ান্ট ফেসবুক।তবে এই পরীক্ষায় ব্যবহারকারীকে নিজের নগ্ন ছবি মাধ্যমটির মেসেঞ্জারে আগে পাঠাতে হবে। তারপর সেই ছবির ডিজিটাল ফিঙ্গারপ্রিন্ট তৈরি করবে ফেসবুক।পরে সেই ফিঙ্গারপ্রিন্ট থেকে ফেসবুক ওই ব্যক্তির কোনো নগ্ন ছবি মাধ্যমটিতে পেলে ধরে নেবে সেটি রিভেঞ্জ পর্ন। এবং তা করা হয়েছে ওই ব্যক্তির অনুমতি না নিয়ে।

এর ফলে ফেসবুক ওই ছবির জন্য একটি ডিজিটাল ফিঙ্গারপ্রিন্ট তৈরি করবে আর ধরে নেবে এই ব্যক্তির কোনো নগ্ন ছবি ফেসবুকে প্রকাশ করা হলে সেটি তার অসম্মতিতেই করা হয়েছে- বলা হয়েছে আইএএনএস-এর প্রতিবেদনে।

কারও অনুমতি ছাড়া তার উপর প্রতিশোধ নেওয়ার উদ্দেশ্যে তার কোনো নগ্নতাপূর্ণ ছবি বা ভিডিও শেয়ার করা হলে সেগুলোকে রিভেঞ্জ পর্ন বলা হয়। এখন কারও সম্পর্ক যদি খারাপ দিকে যেতে থাকে তাহলে তিনি আগে থেকেই পদক্ষেপ নিতে পারবেন। তাদের সাবেক সঙ্গীর মাধ্যমে তাদের অন্তরঙ্গ ছবি ফেসবুক বা ইনস্টাগ্রামে বিস্তৃত পরিসরে ছড়ানো ঠেকাতে তারা এই পদক্ষেপ নিতে পারবেন।

অস্ট্রেলিয়ার রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম অস্ট্রেলিয়া ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশন (এবিসি)-এর প্রতিবেদনে বলা হয়, ফেসবুক এ ধরনের ছবিভিত্তিক নিপীড়ন ঠেকাতে অস্ট্রেলিয়ান সরকারের সঙ্গে চুক্তি করছে। কেউ যদি তার কোনো গোপন ছবি ইনস্টাগ্রাম বা ফেসবুকে ছড়াতে পারে এমন শঙ্কায় থাকেন, তবে তিনি অস্ট্রেলিয়ার ই-সেইফটি কমিশনার-এর সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারবেন। তারপর এই কর্তৃপক্ষ ওই ব্যবহারকারীকে মেসেঞ্জারে তার নিজেকেই ছবিগুলো পাঠাতে বলবে।

ই-সেইফটি কমিশনার জুলি ইনম্যান গ্র্যান্ট এবিসি-কে বলেন, এটি অনেকটা ইমেইলের মাধ্যমে আপনার নিজেকেই ছবি পাঠানোর মতো, কিন্তু অবশ্যই এটি ইথারের মাধ্যমে পাঠানো ছাড়া ছবি পাঠানোর জন্য অনেক নিরাপদ ও সুরক্ষিত এন্ড-টু-এন্ড উপায়। একবার কোনো ছবি মেসেঞ্জারে পাঠানো হলে ফেসবুক এটিকে ‘হ্যাশ’ করার জন্য প্রযুক্তি ব্যবহার করবে। যার মানে হচ্ছে ওই ছবির জন্য একটি ডিজিটাল ফিঙ্গারপ্রিন্ট বা লিঙ্ক তৈরি হবে।

গ্র্যান্ট বলেন, তারা এই ছবি সংরক্ষণ করবেন না, তারা লিঙ্কটি সংরক্ষণ করবেন আর কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ও অন্যান্য ছবি মেলানোর প্রযুক্তি ব্যবহার করবেন। তাই কেউ যদি ওই একই ছবি অন্য কোথাও আপলোড করে, যার একই ডিজিটাল ফুটপ্রিন্ট বা হ্যাশ ভ্যালু রয়েছে, তবে ওই ছবি আপলোড করতে দেওয়া হবে না।

এ জাতীয় আরও খবর