রবিবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮

নানা আয়োজনে শেষ হলো তুসী কালেকশনের প্রথম ‘গেট টু গেদার’

SONALISOMOY.COM
সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৮
news-image

সাকিব আল রোমান : গত ১৪ সেপ্টেম্বর হয়ে গেলো ফাতেমা তুজ জহুরার ব্যবসায়ী বুটিক্স শপ তুসী কালেকশানের প্রথম ‘গেট টু গেদার’। তুসী কালেকশানের চেয়ারপার্সন ফাতেমা তুজ জহুরার সাথে এই গেট টু গেদারের স্পন্সর হয়েছেন সিঁদূর পেজের আফসানা মীর শিথী, গয়না ঘরের সেলিনা আক্তার, ৩১ স্বদেশের ফাহিমা আক্তার লিনা, তাজ শপ বিডির আইরিন ও পালকির মুমু।

ফটোগ্রাফীর দায়িত্বে ছিলেন, এন এইচ আর্ট স্টুডিওর নাহিদ হাসান সোহেল।

স্বল্প রেজিস্ট্রেশন ফিতে অত্যাধুনিক কিছু উপহার দিয়ে সবাইকে রীতিমত তাক লাগিয়ে দিয়েছেন ফাতেমা। ওয়েলকাম গিফটস্, লাঞ্চ, র্যাফেল ড্র দিয়ে রাঙিয়েছেন নিজের প্রথম গেট টু গেদার।

নিজের এই প্রথম অভিজ্ঞতা সোনালী সময়ের কাছে প্রকাশ করতে যেয়ে ফাতেমা তুজ জহুরা বলেন, আমি কিছু একটা স্বপ্ন বুনেছিলাম হয়তো মন থেকেই চেয়েছিলাম নিজের পেজ দিয়ে বুটিক্স ব্যবসার মাধ্যমে নিজের মেধা কাজে লাগাতে। চেষ্টা করেছিলাম নতুন গ্রুপ মেম্বারদের সাথে নিজেকে আরও একটু মানিয়ে নিতে। তাদের চাওয়া-পাওয়া সম্পর্কে জানতে। তবে, প্রথমে কৃতজ্ঞতা জানাই যারা আমার এই গেট টু গেদারে স্পন্সর করেছে। সাহস দিয়েছে। বাবা-মাকেও ধন্যবাদ দেই সর্বদা সাপোর্ট করার জন্য।

তিনি আরও বলেন, দোয়া করবেন সকলে আমার জন্য। আমি যেন আরও অনেকদূর এগিয়ে যেতে সক্ষম হই। আরও নতুন কিছু উপস্থাপন করতে পারি আপনাদের মাঝে। আমার পেজ তুসী কালেকশানের সকল মেম্বারদের প্রতি কৃতজ্ঞতা ও ভালবাসা রইলো। যারা এসেছেন এবং যারা আসতে পারেননি তাদের সকলের প্রতি আমার ভালবাসা থাকবে। সবাই তুসী কালেকশানের সাথেই থাকুন।

স্বপ্ন বলেছিলেন একটা স্বপ্নটা কি জানতে চাইলে তিনি বলেন, সবই যদি এখন বলে দেই তাহলে স্রোতের বিপরীতে লড়াই করে যদি কোনদিন বিজয়ী হতে পারি বিজয়ের মঞ্চে কি বলবো? থাকনা এই বিষয়টি সিক্রেট। অন্য কোন একদিন জানাবো।

সবশেষে কেক কাটার মধ্য দিয়ে শেষ হয় তুসী কালেকশানের প্রথম গেট টু গেদার।