বুধবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৮

টাই ঢাকা’র নতুন বোর্ডের দায়িত্ব গ্রহণ করলেন রুবাবা দৌলার

SONALISOMOY.COM
সেপ্টেম্বর ২৯, ২০১৮
news-image

নিজস্ব প্রতিবেদক: উদ্যোক্তাদের সর্ববৃহৎ আন্তর্জাতিক সংগঠন টাই (টিআইই-দ্যা ইন্ডাস এন্টারপ্রেনার্স) গ্লোবাল-এর ঢাকা চ্যাপ্টারের নতুন বোর্ড দায়িত্ব গ্রহণ করেছে। টাই ঢাকা চ্যাপ্টারের নব-নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট রুবাবা দৌলা’র সভাপতিত্বে সম্প্রতি অনুষ্ঠিত এক সভায় এই বোর্ড দায়িত্ব গ্রহণ করে। টাই ঢাকা চ্যাপ্টারের ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন ব্যারিস্টার এ বি এম হামিদুল মিসবাহ।

টেলিকম এবং আইটি ইন্ডাস্ট্রির সকল ক্ষেত্রে প্রভাবনমূলক ভূমিকা পালনে একজন সফল পেশাদার, উদ্যোক্তা, পরামর্শদাতা এবং উপদেষ্টা হিসেবে রুবাবা দৌলা’র রয়েছে দীর্ঘ উনিশ বছরেরও বেশি সময়ের অভিজ্ঞতা। তিনি অনন্য সব রেকর্ডের অধিকারী একজন অভিজ্ঞ নেতা। তিনি সারাদেশের ডাক্তার এবং রোগীদের জন্য তৈরি একটি ডিজিটাল হেলথকেয়ার প্ল্যাটফর্ম ‘হেলথকেয়ার সার্ভিস’-এর প্রতিষ্ঠাতা এবং ম্যানেজিং ডিরেক্টর। টেলিনর-এর সাবসিডিয়ারি গ্রামীনফোনকে এক নম্বর ব্র্যান্ড হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে এবং বাজারে আধিপত্যকারী অবস্থান তৈরি করার ক্ষেত্রে চিফ অব মার্কেটিং অ্যান্ড চিফ কমিউনিকেশনস অফিসার হিসেবে তিনি অনন্য ভূমিকা পালন করেছেন এবং এয়ারটেল-এর চিফ সার্ভিস অফিসার, হেড অব এমকমার্স অ্যান্ড পিআর (পাবলিক রিলেশন্স) হিসেবে দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন। এছাড়াও তিনি বিভিন্ন বোর্ড ও সংগঠনের পরিচালক ও সদস্য হিসেবে সাফল্যের সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন এবং টেলিকম সেক্টরে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখার স্বীকৃতি হিসেবে ও একজন নারী নেত্রী হিসেবে বেশকিছু জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সম্মাননা অর্জন করেছেন।

ব্যারিস্টার এ বি এম হামিদুল মিসবাহ বর্তমানে ওল্ড বেইলি চেম্বার্স-এর ম্যানেজিং পার্টনার। কার্যকর কমিটির একজন সদস্য হিসেবে তিনি জাতীয় আইসিটি নীতিমালা ২০০৯ এর খসড়া প্রণয়নে অবদান রাখেন এবং বিটিআরসি (বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন) ও ডিসিসিআই (ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি)-এর লাইসেন্সিং ও নীতিমালা নির্দেশিকার খসড়া প্রণয়নে সহায়ক ভূমিকা পালন করেন। এছাড়াও তিনি বাংলাদেশে মেধাস্বত্ত্ব অধিকারের সুরক্ষা এবং উন্নয়নের জন্য কাজ করা অলাভজনক প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ কপিরাইট অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল প্রোপার্টি ফোরাম (বিসিআইপিই)-এর প্রতিষ্ঠাতা।

এছাড়া টাই ঢাকা’র ট্রেজারারের দায়িত্ব পালন করবেন কানতারা খান (পরিচালক, গ্রিন ইঞ্জিনিয়ারিং এন্ড ডেভেলপমেন্ট লিমিটেড)। বাকি বোর্ড ডিরেক্টররা হলেন সৈয়দ আলমাস কবির (প্রেসিডেন্ট বেসিস অ্যান্ড চিফ এক্সিকিউটিভ অফিসার, মেট্রোনেট বাংলাদেশ লিমিটেড), তাহসিন আমান (ভাইস চেয়ারম্যান, আমান গ্রুপ), মানতাশা আহমেদ (ডিরেক্টর, রিলাস বাংলাদেশ), তারেক রাফি ভূঁইয়া (এমডি ও কো-ফাউন্ডার, নিউভিশন সল্যুশন্স লিমিটেড)। পাশাপাশি, টাই ঢাকা’র উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন সাবেক চেয়ারম্যান সোনিয়া বশির কবির (এমডি, মাইক্রোসফট বাংলাদেশ; নেপাল; ভুটান ও লাওস) এবং শামীম আহসান (চেয়ারম্যান, ইজেনারেশন)।

১৯৯২ সালে সিলিকন ভ্যালিতে দক্ষিণ এশিয়ার বংশোদ্ভূত এক দল সফল উদ্যোক্তা, কর্পোরেট এক্সিকিউটিভ ও অভিজ্ঞ পেশাজীবী মিলে টাই গ্লোবাল গঠন করেন। এটি একটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান, যা সকল শিল্পক্ষেত্রে সব পর্যায়ের উদ্যোক্তাদের সূচনা থেকে বেড়ে ওঠার সমস্ত ধাপে সহযোগীতা দিয়ে থাকে। বর্তমানে টাই গ্লোবালের ১৩,০০০ সদস্য রয়েছে, যার মধ্যে আছে ৬১টি চ্যাপ্টার ও ১৮টি দেশে ২,৫০০ চার্টার সদস্য। মনিটরিং, নেটওয়ার্কিং, শিক্ষা, ইনকিউবেটিং ও অর্থায়নের মাধ্যমে উদ্যোগগুলোকে জোরদার করাই টাই ঢাকা’র উদ্দ্যেশ্য। টাই ঢাকা বিভিন্ন স্টার্টআপ, বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের শিক্ষার্থী ও নারী উদ্যোক্তাদের জন্য ফ্ল্যাগশিপ প্রোগ্রাম চালু করার মাধ্যমে এসব উদ্যোগকে এগিয়ে নেয়ার লক্ষ্যে কাজ করবে।