সোমবার, ২১ জানুয়ারি, ২০১৯

বাগমারায় নৌকার প্রচারণার উদ্বোধন করলেন এমপি এনামুল হক

SONALISOMOY.COM
ডিসেম্বর ১০, ২০১৮
news-image

বাগমারা প্রতিনিধি: দেশে বইছে উন্নয়নের বাতাস। সকাল থেকে গভীর রাত উব্দী হচ্ছে উন্নয়ন। এই উন্নয়ন ধারা বজায় রাখতে নিরলস ভাবে কাজ করে চলেছেন বর্তমান সরকার। এরই ধারা বাহিকতায় রাজশাহীর বাগমারায় ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হকের হাত ধরে হয়েছে ব্যাপক উন্নয়ন। সেই উন্নয়ন ধারা অব্যাহত রাখতে তৃতীয় বারের মতো দলীয় মনোনয়ন নিয়ে মাঠে নেমেছেন ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক সহ তাঁর কর্মী সমর্থকরা।

আর কদিন পরেই একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। জাতীয় নির্বাচনকে ঘিরে বিভিন্ন প্রকার প্রচারণায় নেমেছেন প্রার্থীরা। বিশেষ করে আ’লীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক দীর্ঘ দিন থেকেই গ্রহণ করেছেন নির্বাচনী প্রস্তুতি।

২০০৮ সালে শুধু বাগমারা উপজেলা নিয়ে রাজশাহী-৪ আসন ঘোষণা করে সরকার। সেই সময় ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থীকে পরাজিত করে নির্বাচিত হন ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক। তথন থেকেই শুরু করেন উন্নয়ন। ২০১৪ সালের নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় দ্বিতীয় বার সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন তিনি।

তৃতীয় বারের মতো আ’লীগের দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক। সোমবার প্রার্থীদের মাঝে দেয়া হয় প্রতীক বরাদ্দ। প্রতীক বরাদ্দ পেয়েই ব্যানার, পোস্টার টাঙ্গানো শুরু করেছে নৌকার প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হকের কর্মী-সমর্থকরা। উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ স্থান সহ বিভিন্ন হাট বাজার আর পাড়া মহল্লায় ছেয়ে গেছে প্রচারণায়। উপজেলা জুড়ে শোভা পাচ্ছে নির্বাচনী প্রচার সামগ্রী।

বিশেষ করে গত ২০১৪ সাালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাগমারায় ভোট না হওয়ায় এবার নির্বাচনী আমেজ বিরাজ করছে উপজেলা সর্বত্র।

উপজেলা জুড়ে কেবল নৌকার ব্যানার, পোস্টারে ছেয়ে গেছে। পুরো উপজেলা যেন নৌকার প্রচারণা দেখা যাচ্ছে। শুধু ব্যানার আর পোস্টারেই সীমাবদ্ধ নেই নৌকার প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক। উপজেলার ১৬টি ইউনিয়ন ও ২টি পৌরসভায় বর্তমান সরকারের নানা উন্নয়ন সহ নৌকার পক্ষে ভোট চেয়ে মাইকের মাধ্যমে প্রচারণা শুরু করেছেন ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক এমপির পক্ষ থেকে।

প্রতীক পাওয়ার পর বিকেল জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে উপজেলার বাসুপাড়া ইউনিয়নের দেউলিয়া চৌরাস্তার মোড়ে একটি নির্বাচনী অফিস উদ্বোধন করে প্রচারণার যাত্রা শুরু করেন। ইউনিয়ন আ’লীগের উদ্যোগে পরে একটি প্রচার মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি দেউলিয়া চৌরাস্তা থেকে শুরু হয়ে বাস স্ট্যন্ড হয়ে ভবানীগঞ্জ নিউ মার্কেট পর্যন্ত যায়। পরে সেখানে এক পথ সভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রধান অতিথি বলেন, আজ থেকে প্রচারণার যাত্রা শুরু। নৌকার বিজয় ঘটিয়ে এই প্রচারণা যেন শেষ হয়। উপজেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক গোলাম সারওয়ার আবুলের পরিচালনায় এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আ’লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি মতিউর রহমান টুকু, ভবানীগঞ্জ পৌর সভার মেয়র আব্দুল মালেক মন্ডল, উপজেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সিরাজ উদ্দিন সুরুজ, সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল হোসেন, সহ-দপ্তর সম্পাদক নুরুল ইসলাম, কার্যকরী কমিটির সদস্য বাসুপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান লুৎফর রহমান, হাতেম আলী, আব্দুল বারীক, ওমর আলী, জেলা পরিষদ সদস্য মাহমুদুর রহমান রেজা, উপজেলা মহিলা লীগের সভাপতি মরিয়ম বেগম, সাধারণ সম্পাদক কহিনুর বেগম, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শামীম মীর, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি উজ্জল হোসেন, জেলা ছাত্রলীগ নেতা আশিকুর রহমান সজল, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জহুরুল ইসলাম, সহ-সভাপতি ইসমাইল হোসেন সান্টু, ভবানীগঞ্জ কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি নাদিরুজ্জামান মিলন, বাসুপাড়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি এনামুল হক, মাড়িয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর রউফ প্রমুখ।