বৃহস্পতিবার, ১৬ জানুয়ারি, ২০২০

বাগমারার তাহেরপুরে ‘বিসিএন’ ক্যাবল টিভিতে অশ্লীল বিজ্ঞাপন প্রচার

SONALISOMOY.COM
জানুয়ারি ১৬, ২০২০
news-image
বাগমারা প্রতিনিধি: প্রশাসনের বৃদ্ধাআঙ্গুল দেখিয়ে রাজশাহীর বাগমারার তাহেরপুরে ক্যাবল নেটওয়ার্কে নিয়ম বহির্ভূতভাবে মিনি টিভি চ্যানেল খুলে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। বিজ্ঞান প্রচার করে হাতিয়ে নিচ্ছে লাখ লাখ টাকা ‘বিসিএন’ ক্যাবল নেটওর্য়াক কর্তৃপক্ষ।
নিয়ম বর্হিভূতভাবে সম্পূর্ণ বাণিজ্যিক উদ্দেশ্যে দিনভর ভিডিও চ্যানেলগুলোতে অনুষ্ঠানের পাশাপাশি বিউটি পার্লার, কোচিং সেন্টার, ক্লিনিক, ডাক্তার, হাকিম-কবিরাজ, হারবাল যৌন চিকিৎসা, দোকানের বিজ্ঞাপন, জমি বিক্রি, পাহাড়ী হারবাল, কলিকাতা হারবাল, মোটা তাজা ও ত্বক ফর্সা করার বিভিন্ন কুরুচিপূর্ণ অশ্লীল ও যৌন সুড়সুড়ি ওষূধের বিজ্ঞাপন প্রচার করে আসছে।
রাজশাহীর সবচেয়ে বড় ক্যাবল নেটওয়ার্ক ‘বিসিএন’ তাহেরপুর থেকে সাত-আটটি থানায় প্রায় ১০ হাজার গ্রাহকের মাঝে প্রচারিত করে থাকে।
জানা গেছে, তাহেরপুরের ডিস চ্যানেলে অনুমোদিত স্যাটেলাইট চ্যানেলগুলোর মতোই নিদ্রিষ্ট নাম, লোগো এমনকি অনুষ্ঠান সূচি অনুসারে সম্প্রচার চলছে। ২৪ ঘন্টাই নানা ধরনের অনুষ্ঠান সম্প্রচার করা হয়। নির্বাচিত নাটক, গান ও নতুন-পুরুনো দেশি-বিদেশি পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচিত্র প্রচার কারা হয় এসব চ্যানেলে।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, প্রচারিত ওষুধ কোম্পানিগুলোর মধ্যে বেশির ভাগেরই নেই সরকারি অনুমোদন নীতিমালা। বিজ্ঞাপন দেখে ওষুধ সেবন করে সর্বহারা হচ্ছে সাধারণ মানুষ আর আর্থিক সুবিধা ভোগ করছে বিএসএন ক্যাবল মালিক বিমল সরকার।
অন্যদিকে এসব ক্যাবল টিভিতে অশ্লীল ছবি ও বিজ্ঞাপন প্রচার করে নৈতিক অবক্ষয় হচ্ছে।
রামরামা গ্রামের এক গ্রাহক অভিযোগ করে বলেন ‘বিসিএন’ ক্যাবল নেটওয়ার্ক থেকে চারটি সিডি চ্যানেল (নিজস্ব চ্যানেল) প্রচার করে থাকে সেখানে অশ্লীল বাংলা ছবি ও কুরুচিপূর্ণ গানসহ যৌন সুড়সুড়ি বিজ্ঞাপন প্রচার করে থাকে যা সন্তানদের মাঝে খারাপ প্রভাব ফেলে।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, এ খাত থেকে তারা নিয়ম বর্হিভুত ভাবে আয় করলেও ভ্যাট ট্যাক্স বা কোন রকম রাজস্ব সরকারকে জমা দিচ্ছে না। যার বিনিময়ে দিচ্ছে সারা বছরে প্রশাসনের দুই একটি প্রগ্রাম ফ্রি প্রচার কেবল টিভি নেটওর্য়াক, আর বিনিময় নিচ্ছে সারা বছর রাজস্ব ফাঁকি ও লাখ লাখ টাকা আয় করার সুযোগ।
বিসিএন ক্যাবল নেটওয়ার্ক এর মালিক বিমল চন্দ্র সরকার বলেন হ্যাঁ কেবল টিভিতে বিজ্ঞাপন চালানো অবৈধ তারপরে আমরা চালাই। শুধু শুধু আমার না বাগমারাতে অনেক ক্যাবল অপারেটর আছে তারাও এই বিজ্ঞাপন চালায়।